লামায় ভাইয়ের হাতে ভাই খুন

Date: 2023-09-20
news-banner

বার্তা বিচিত্রা সর্বশেষ সংবাদ পেতে Google news অনুসরণের জন্য ক্লিক করুন



মোঃ চান মিয়া লামা প্রতিনিধি।। 

পার্বত্য জেলার বান্দরবানের লামায় আব্দুর রহিম (২৪) নামে এক যুবকে নৃশংসভাবে লাটি দিয়ে মেরে খুন করেছে আপন বড় ভাই। দুই লাখ টাকার বিষয়ে ঘটনাকে কেন্দ্র করে এমন নৃশংস ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছেন নিহতের মামি রুবি আক্তার। 

(১৭সেপ্টেম্বর) রবিবার রাত ১০টায় লামা উপজেলার ফাইতং ইউনিয়ন ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ড রাঙ্গা ঝিরি এলাকার গ্রামে এই খুনের ঘটনা ঘটে। নিহত আব্দুর রহিম (২৪) রাঙ্গা ঝিরি এলাকার আবুল কালাম ছেলে। এদিকে খুনের পর ঘটনা ভিন্ন দিকে প্রবাহিত করতে লাশ রাতের আধাঁরে জঙ্গলে ফেলে আসে বড় ভাই মো. ইউনুস। লামা থানা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শামীম শেখ বলেন, পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে এমনটাই জানিয়েছেন আটক বড় ভাই।

ঘটনার পরে দিন রাত সাড়ে ১০টায় পাশ্ববর্তী লোকজন জানাজানি হলে পুলিশ’কে খবর দেন। লামা থানা পুলিশ ফাইতং রাঙ্গাঝিরি এলাকার জঙ্গল থেকে নিহতের লাশ উদ্ধার করে। এই ঘটনা নিহতের পরিবারের ৬ জনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানা আনা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয়দের সূত্রে জানা যায়, রবিবার রাতে নিহত আব্দুর রহিম ও বড় ভাই ইউনুস সাথে বড় ভাই বিদেশ থেকে তাদের আরেক ভাইয়ের পাঠানো ২ লাখ টাকা নিয়ে দুই ভাইয়ের মধ্যে কথা-কাটাকাটি চলছে নিহত ব্যাক্তি আগে বড় ভাই গায়ে হাত তোলেন। এক পর্যায়ে বড় ভাই ছোট ভাইকে খুন করে। বাড়ি লোক জন প্রতিবেশীদের কে বলেন, নিহত আব্দুর রহিম ২ লক্ষ টাকা নিয়ে বাড়ি থেকে পালিয়ে গেছেন। কিন্তু লাশ হয়ে বাড়িতে শুয়ে আছে। তবে নিহত বিষয়টি কাওকে না বলে পরের দিন রাত সাড়ে ১০টায় কেউ না কেউ হত্যা করছে বলে জানান পরিবার লোকজন।

ঘটনাস্থলে পরিদর্শন করে লামা থানা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শামীম শেখ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বড় ভাই ছোট ভাইকে খুন করে মৃতদেহ জঙ্গলের লুকাইয়া ঘটনা ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করার চেষ্টা। 

তদন্তে পাঁচ ঘন্টার জিজ্ঞাসাবাদে খুনের মূল রহস্য উদঘাটন করে আসামি গ্রেফতার করে পুলিশ। মূল অভিযুক্ত আসামী মো. ইউনুস কে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে।

বাকীদের জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ বান্দরবান জেলা সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। আইনী প্রক্রিয়া শেষে নিহতের পরিবারের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হবে। আটক ভাইয়ের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা রুজু করা হয়েছে।

মরদেহের সুরতহাল করেন ফাইতং পুলিশ ফাঁড়ি ইনচার্জ জুনাইদ হাসান বলেন, নিহত আব্দুর রহিম মাথায় জখমের চিহ্ন দেখা যায়।

Leave Your Comments